প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে মৃত্যুর সংখ্যায় চীনকেও ছাড়িয়ে গেছে ইতালি। এ ভাইরাসে দেশটিতে বিগত ২৪ ঘণ্টায় আরো ৪২৭ জন ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। এতে করে দেশটিতে মৃতের সংখ্যা তিন হাজার ৪০৫ জনে দাঁড়িয়েছে। নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে পাঁচ হাজার ৩২২ জন। এতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪১ হাজার ৩৫ জন।

এর আগে গত বুধবার ইতালিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ৪৭৫ জন মারা যান। এখন পর্যন্ত এটাই যেকোনও দেশের জন্য একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড। এমন খবর প্রকাশ করেছে বিবিসি।

এদিকে ডেইলি মেইলের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ১৯ মার্চ, বৃহম্পতিবার করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ইতালিতে ৫ জন চিকিৎসকের মৃত্যু হয়। এতে করে দেশটি এখন পর্যন্ত ১৩ জন চিকিৎসকের মৃত্যু হলো। এছাড়াও দেশটির ২৬২৯ জন স্বাস্থ্যকর্মী এ ভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছে।

Image result for Italy corona dead

ইতালির চিকিৎসকদের জাতীয় সংস্থা জানায়, মৃতদের মধ্যে রয়েছেন- ক্রেমা হাসপাতালের সাবেক মহাব্যবস্থাপক জিউসিপ ফিনজি, ক্রেমনার এক হাসপাতালের চিকিৎসক এবং আন্তোনিও বুট্টাফুকো নামের বার্গামোর একজন জেনারেল প্রাক্টিশনার। এছাড়াও দু’জন স্বাস্থ্যকর্মী অসুস্থতার কারণে মারা গেছেন বলে জানানো হয়।

ইতালিতে গত ১২ মার্চ থেকে ২৫ মার্চ পর্যন্ত ‘লকডাউন’ ঘোষণা করা হয়। এই সময় আরো বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে দেশটির সরকার। বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয়ার পরেও দেশটিতে করোনার প্রকোপ থামানো যাচ্ছে না।

গত ৩১ ডিসেম্বর চীনের উহানে প্রথমবারের মতো শনাক্ত হয় নভেল করোনাভাইরাস। এ পর্যন্ত সেখানে মারা গেছেন ৩ হাজার ২৪৫ জন, আক্রান্ত হয়েছেন ৮০ হাজার ৯২৮ জন। তবে গত ২৪ ঘণ্টায় চীনে নতুন করে কোনো করোনায় আক্রান্ত রোগী পাওয়া যায়ন। কিন্তু ইতালিতে মাত্র একমাসের মধ্যেই মৃত্যুতে চীনকে ছাড়িয়ে গেছে।