পেপাল বাংলাদেশে না আসার বড় কারন হচ্ছে বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পলিসি অনুযায়ী পেপাল বাংলাদেশে আসলে বাংলাদেশের অধিকাংশ রেমিট্যান্স অন‍্য দেশ অর্থাৎ আমেরিকার অনলাইন পেমেন্ট সার্ভিস প্রতিষ্ঠান পেপালের নিকট চলে যাবে যাতে করে বাংলাদেশের অনেক অর্থ বিদেশে চালান হয়ে যাওয়ার পথে প্রায় ১ ধাপ এগিয়ে থাকবে। তবে এজন্য বাংলাদেশ গভর্নমেন্ট এবং কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সাথে একটি পরামর্শ করা হয়েছে আরো দুই বছর আগে কিন্তু পেপাল দাবি করেছে তাদের একটি অনলাইন গেটওয়ে যার মাধ্যমে তারা বিভিন্ন দেশ থেকে টাকা পেপালের মাধ্যমে যেন বাংলাদেশের মানুষ খুব সহজেই সেটা গ্রহণ এবং প্রেরণ করতে পারে তার সমাধান চেয়েছে। এখন পর্যন্ত এই বিষয় নিয়েই পেপাল আর বাংলাদেশ আটকে রয়েছে তবে আশা করা যায় খুব তাড়াতাড়ি এই কাজটি সম্পন্ন করে পেপাল বাংলাদেশে আনা হবে।

আর আমাজন বাংলাদেশে অনেক আগে থেকেই রয়েছে কিন্তু তাদের কোন অফিস বা নির্দিষ্ট কোন ওয়েবসাইট বাংলাদেশের জন্য ভিত্তি করে খোলা হয়নি কারণ তাদের দাবি আমাজন এখন বাংলাদেশে তাদের কার্যক্রম চালালে বাংলাদেশের আইটি অর্থনীতি হুমকির মুখে পড়বে এবং আমাজন কোম্পানি সেসব দায়ভার নিতে চায় না এবং তাদের এসব ক্ষতির কথা চিন্তা করেই তারা এখনো বাংলাদেশে কার্যক্রম চালু করছে না। ঠিক একই ভাবে গুগল, ইউটিউব, ফেসবুক এবং অ‍্যাপেল এসব কথা মাথায় রেখেই তাদের কাজ বাংলাদেশের জন্য আপাতত স্থগিত করে রেখেছে। হয়তো কোরার ক্ষেত্রে ও তা প্রযোজ্য।

তবে ধৈর্য্য নিয়ে বসে থাকেন একে একে সব বড় বড় কোম্পানি গুলোই একদিন বাংলাদেশে তাদের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান নিয়ে আসবে।